ফেসবুক অ্যাকাউন্ট বিভিন্ন কারনে বন্ধ করে দেয়া হয়। কিছু অসচেতনতা এবং ভুল কিছু পদক্ষেপের জন্য আপনি হারাতে পারেন আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্টটি।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলির মধ্যে ফেসবুক বেশ জনপ্রিয়।বেশিরভাগ মানুষই এখন কাজের ফাকে সময় কাটান ফেসবুকে।কিন্তু কিছু অসচেতনতার কারনে বন্ধ হয়ে যেতে পারে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট।

Facebook বন্ধের কিছু কারন নীচে দেয়া হল-

১.অনেকে একই ম্যাসেজ সবাইকে বার বার পাঠাতে থাকে এবং একই পোস্ট বার বার করতে থাকে। একই ম্যাসেজ বার বার সেন্ড করা হলে বা পোস্ট বার বার করা হলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হয়।একই ধরনের বার্তা বার বার দিতে চাইলে কনটেন্টে কিছু না কিছু পরিবর্তন নিয়ে আসতে হবে।

২. ফেসবুকের মাধ্যমে কোন ধরনের হুমকি বা আক্রমনাত্নক ম্যাসেজ পাঠান হলে আর এর জন্য যদি কেউ রিপোর্ট করে,তাহলে সেই অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হয়।

৩.একদিনে অনেক বেশি ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠালে ফেসবুক থেকে তাকে সতর্ক করা হয়।সেই সতর্ক না মেনে রিকোয়েস্ট পাঠাতে থাকলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হয়।

৪. ফেসবুকে কোন ধরনের আপত্তিকর ছবি বা ভিডিও আপলোড করা হলে আপনার অ্যাকাউন্টটি বাতিল হতে পারে।

৫. আপনার ফেসবুক অয়ালে একই পোস্ট বার বার করা হলে ফেসবুক পোস্টটিকে স্প্যাম বলে ধরে নেয়।এবং এতে সাময়িকভাবে অ্যাকাউন্টটি স্থগিত করে দেয়া হয়।

৬. আপনি কোন সেলিব্রেটির নাম নিজের নামের পরিবর্তে ব্যবহার করলে এবং কোন ধরনের অভিযোগ পাওয়া গেলে অ্যাকাউন্ট বাতিল হয়ে যেতে পারে।

৭. অ্যাকাউন্টে কোন মিথ্যা তথ্য বা ফেক অ্যাকাউন্ট খোলা হলে ফেসবুক সেই আইডি গুলিকে সমর্থন করে না। যদি শনাক্ত করা যায় আইডিটি ফেক তাহলে আইডিটি বন্ধ করে দেয়া হয়।

৮. যদি কোন অ্যাকাউন্টে শুধু বিজ্ঞাপন দেয়া হয় তাহলে সেই অ্যাকাউন্টটি বন্ধ হয়ে যেতে পারে।

প্রতিটি ব্যবহারকারী উপরের বিষয়গুলি মেনে চললে আর ফেসবুক অ্যাকাউন্ট বাতিল হবে না।