Android ফোনের জগতে যে তথ্য নিয়ে ঝড় উঠেছে সেই ঝড়ে অনেকের মতো আমিও আতঙ্কিত। তবে আপনাদের আতংকিত হবার কারণ নেই কারণ আমি এ সম্পর্কিত বেশ কিছু তথ্য আপনাদের আমি জানাব। বাকিটুকু আপনাদের ওপর।
বাংলাদেশের মোবাইল বাজারে অনেক কোম্পানি অনেক প্রতিযোগিতার মাঝে ব্যবসা করছে। সবাই মোটামুটি বাজার গরম ও করে রেখেছে। কিন্তু এই প্রতিযোগিতাই কিছু অসাধু ব্যবসায়ী শুভঙ্করের ফাঁকির আশ্রয় নিয়েছে। তারা ক্রেতার কাছে মোবাইলের ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টি না দিয়ে সার্ভিস ওয়ারেন্টির কথা বলে মোবাইল বিক্রি করে ক্রেতাদের ঠকাচ্ছে।

আসুন কিছু পার্থক্য দেখি ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টি ও সার্ভিস ওয়ারেন্টির মধ্যেঃ

মৌলিকতাঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ যেখানে ব্র্যান্ড নিজেই তার প্রোডাক্টের সার্ভিসিং করে দেয়।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃ যেখানে ৩য় কোন পক্ষ সার্ভিসিং করে এবং ব্র্যান্ড কোম্পানি প্রোডাক্ট এর সার্ভিসের সাথে জড়িত থাকেনা।

দায়বদ্ধতাঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ ব্র্যান্ড নিজেই প্রোডাক্ট এর সবকিছুর দায়িত্ব বহন করে।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃ বিক্রেতা পন্যের বিক্রির দায়িত্ব নেয় কিন্তু ব্র্যান্ডের দায়িত্ব নেই না।

মূল্য পরিমাণঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ আসল ব্র্যান্ডের পন্যের দাম এর ভেতর ওয়ারেন্টি খরচ অন্তর্ভুক্ত থাকে, তাই দাম কিছু বেশি হয়।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃ পন্যের দাম কম হয় কারণ এটা কপি পণ্য এবং বিক্রেতা নিজেই এর সার্ভিস দিয়ে থাকে।

সার্ভিসিং মুল্যঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ সার্ভিসিং চার্জ ফ্রী ও পার্টসের মুল্য লাগেনা। আঘাত জনিত সমস্যা থাকলে পার্টসের মূল্য পরিশোধ করতে হয়।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃসার্ভিসিং চার্জ ফ্রী কিন্তু যে কোন সমস্যার পার্টসের মূল্য পরিশোধ করতে হয়, যদিও তা আসল নয়।

সময়ঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টি এর সময় থাকে ১ বছর এবং তারপর আসল ব্র্যান্ড এর পার্টস এবং সার্ভিস পাবেন ব্র্যান্ডের কাস্টমার কেয়ার সেন্টারে।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃ প্রথম বছর থেকেই ব্র্যান্ডের কোন কাস্টমার কেয়ার ব্যবহার করতে পারবেন না। ব্র্যান্ড নিজেও এর কোন দায় নেবে না।

সার্ভিসের ধরনঃ
ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টিঃ কোন পার্টস যদি ওয়ারেন্টি চলাকালীন সময় কোন আঘাত বা বাহিরের কোন বল প্রয়োগে নষ্ট না হয় তাহলে আপনি বিনা মুল্যে আসল পার্টস পাবেন।
সার্ভিস ওয়ারেন্টিঃআপনাকে সার্ভিস করে নিতে হবে মুল্য দিয়ে কিন্তু আসল পার্টস পাবেন না।

উপরোক্ত পার্থক্য থেকে বুঝতেই পারছেন ব্র্যান্ড ওয়ারেন্টি ও সার্ভিস ওয়ারেন্টির এর মাঝে কেমন শুভঙ্করের ফাঁকি আছে। সুতরাং আপনার পছন্দের কোন পণ্য কেনার আগে অবশ্যয় বিষয় গুলো বিবেচনা করে নেবেন।