সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক এখন বর্তমান সময়ের সব থেকে আলচিত বিজ্ঞাপন মাধ্যম। ফেসবুক বিজ্ঞাপন বা মার্কেটিং কে  কাজে লাগিয়ে আজকের

তরুণ সমাজ স্বনির্ভর। আপনি যদি ক্রিয়েটিভ আইডিয়ার লোক হয়ে থাকেন তাহলে আপনার পরিকল্পনা অনুসরন করে

ফেসবুক বিজ্ঞাপন করে এক্সট্রিম লেভেলের প্রফিট পেতে পারেন। বর্তমানে যেকোন ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে

সব থেকে ইফেকটিভ ভূমিকা পালন করতে সক্ষম ফেসবুক। ফেসবুক বিজ্ঞাপন লেভেল এখন এমন এক

পর্যায়ে চলে গেছে যেখান থেকে আমাদের দেশের মত আরো অনেক গরিব দেশের লোকেরা স্বনির্ভর হতে পারছে।

অল্প বাজেটে অনেক লাভবান হতে পারছে। আজকের বিজ্ঞাপন এর দুনিয়া ফেসবুক এক সুবিশাল কমিউনিটি গড়ে তুলেছে।

ফেসবুক বিজ্ঞাপন দেওয়ার প্রক্রিয়া অনেক সহজ ও সরল আপনি চাইলেই এখানে বিজ্ঞাপন প্লেস করতে পারেন।

এর জন্য প্রয়োজন আপনার ইন্টারন্যাশনাল সাপর্টেড ভিসা, মাস্টার অথবা পেপ্যাল একাউন্ট।

ফেসবুক বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রে সব থেকে বড় ভূমিকা পালন করে পোস্ট রিস এর ব্যাপার।

আপনার কন্টেন্ট যত ভালো হবে আপনার পোস্ট ততই এঙ্গেজ হবে তাই পোস্ট বুস্ট করার আগেই মাথায় রাখুন আপনার কন্টেন্ট কতটা কার্যকর।

আমাদের দেশে আজকের অনেক বেকার সমাজ ফেসবুক বিজ্ঞাপন বা মার্কেটিং ব্যবহার করে স্বনির্ভর হচ্ছে।

আজ আমি আপনাদের সাথে কিছু শেয়ার করতে চাই তা হলো ফেসবুক বিজ্ঞাপন।

হ্যাঁ আমরা অনেকেই আমাদের ব্যবসাকে প্রসার করতে বিভিন্ন ভাবে প্রচার করে থাকি। নিন্মে কয়েকটি কারন উল্লেখ করা হলো। আশা করি ভাল লাগবেঃ

১। ব্যাবসার প্রসারে ফেসবুক বিজ্ঞাপন


ই-কমার্স ওয়েব সাইটের প্রধান প্রান হলো বিজ্ঞাপন। আপনি আপনার বিজ্ঞাপন বন্ধ করে ফ্রী বক বক করে বেড়াবেন আশা করি ফল টা তেমন আশানুরূপ হবে না। তাই আমি বলতে পারি যে ফেসবুক বিজ্ঞাপন দিলে আপনার ব্যাবসার পরিধি এবং বিক্রয় ১০০০% বৃদ্ধি হবেই হবে।

২। ওয়েব সাইটে ভিসিটোর বাড়াতে facebook marketing

%e0%a6%ab%e0%a7%87%e0%a6%b8%e0%a6%ac%e0%a7%81%e0%a6%95-%e0%a6%ac%e0%a6%bf%e0%a6%9c%e0%a7%8d%e0%a6%9e%e0%a6%be%e0%a6%aa%e0%a6%a8

আসলেই বিজ্ঞাপন মুলত ব্যাবসার ক্ষেত্রে দেওয়াটাই বাঞ্চনিয়। তবে আমরা দেখতে পাই যে আমরা বিভিন্ন এবং বড় বড় ওয়েবসাইট কে ফেসবুক বিজ্ঞাপন দিতে

দেখি যদি ও তাদের কনো ব্যাবসা করার পন্য নেই কিন্তু তাদের ওয়েব সাইটেরে ভিসিটরই মুল লক্ষ।

৩। ব্লগারঃ আমরা যারা ব্লগিং করে থাকি তাদের সবাইরে একটা ওয়েব সাইট থেকে হোক না সেটা ফ্রী কিং বা প্রিমিয়াম।

আর সেই সাথে Google Adsense-এর বিজ্ঞাপন ব্যবহার করে না তার সংখ্যা মাত্র হাতে গনা। আমরা প্রায় চাই

যে আমাদের ওয়েব সাইটে ভিসিটর সর্বদা আসা যাওয়া করুক আর সেটা সম্পুর্ন ফ্রী কাজের মাধ্যমে পুর্ণ করা যায় না।

আপনি যদি ভিসিটোরের চাহিদা মিটাতে পারেন এবং মনে করেন যে ভিসিটর আপনার সাইট টি অবশ্যই

পচ্ছন্দ করবে তো আপনি আপনার ওয়েব সাইট কে বিজ্ঞাপনে আনতে পারেন।

ফেসবুক অ্যাড ad করে যেভাবে লভবান হবেন?

আগেই বলেছি আপনার সাইট যদি ভিসিটরকে না আকর্ষন করে তবে আপনি বিজ্ঞাপন দিয়ে তেমন লাভ করতে পারবেন না।

ধরুন আপনি বিজ্ঞাপন দিলেন কিন্তু আপনার অয়েব সাইটে তেমন ভাল লাগার বা কাজের কনো কিছু নেই

তো ভিসিটো আসে সেখানে কি করবে? তাই ভিসিটর এসেই ১৫ সেকেন্ড না থেকেই চলে যাবে এতে

করে আপনি আপনার সাইটের রেঙ্ক হারাবেন সাথে বাউন্স রেট করে অনেক বেশি হারে বেড়ে যাবে।

তবে হ্যাঁ, আপনার উদ্দেশ্য যদি হয় Google Adsense-এর বিজ্ঞাপনে শুধু মাত্র ক্লিক বাড়ানো তবে একটি নিদ্রিষ্ট টিউন বা আপনার ওয়েব সাইটের নির্দিষ্ট পেইজ কে কেন্দ্র করে বিজ্ঞাপন দিলে অনেক ভাল ফল পাওয়া যায়।

আবার যাদের ই-কমার্স ব্যবসা আছে তারা সবার সামনে তাদের পন্য সমুহকে প্রর্দশন করাতে পারেন। যেহেতু বিজ্ঞান গুলো টার্গেট ভিত্তিক তাই আপনি অনায়াসে ৩০%–৬০% সেলস পাবেন।

কিজ্ঞাপনের খরচ?

সেটা নিয়ে ২য় পর্বে আলচনা করব। আর আগাম জানিয়ে রাখি এটা অনেক কম খরছে করা যায়। আশা করি নিরাশ হবেন না।

“ধন্যবাদ”